May 22, 2024, 6:27 pm
শিরোনাম
বেরোবি ফিল্ম এন্ড আর্ট সোসাইটির নেতৃত্বে সোয়েব ও অর্ণব ইবি রোভার স্কাউটের বার্ষিক তাবুঁবাস ও দীক্ষা অনুষ্ঠান শুরু সেভেন স্টার বাস কাউন্টারের কর্মীদের হামলার শিকার পবিপ্রবির শিক্ষার্থীরা, আহত ৫ শিক্ষার্থীদের জন্য সাংবাদিকতায় বুনিয়াদি প্রশিক্ষণের আয়োজন করলো নোবিপ্রবিসাস ইবি ছাত্রলীগ সহ-সম্পাদকের বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি জাবিতে কুরআনের অনুবাদ পাঠ প্রতিযোগিতার পুরুষ্কার বিতরণী অনুষ্ঠিত মগের মুল্লুকে পরিণত হয়েছে দেশটা: বিএনপি মহাসচিব ‘চ্যারিটি ফান্ড কেইউ’ এর আনুষ্ঠানিক যাত্রা শুরু পবিপ্রবিতে বিশ্বকবির ১৬৩ তম জন্মজয়ন্তী উদযাপন একজন আইনজীবীর প্রথম দায়িত্ব হচ্ছে মানুষের অধিকার রক্ষার জন্য কাজ করা : অ্যাটর্নি জেনারেল

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন ভিসি ড. গোলাম সাব্বির সাত্তার

মোঃ সোহাগ আলী, রাবি প্রতিনিধি
  • প্রকাশের সময় : Sunday, August 29, 2021,
  • 0 বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) উপাচার্য হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন পরিবেশ বিজ্ঞান ইনস্টিটিউটের পরিচালক ও প্রফেসর ড. গোলাম সাব্বির সাত্তার। তিনি বিশ্ববিদ্যালয়টির ২৪ তম উপাচার্য হিসাবে নিয়োগপ্রাপ্ত হলেন।

রবিবার (২৯ আগস্ট) দুপুরে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের সরকারি সাধারণ বিশ্ববিদ্যালয় শাখার উপসচিব মো. মাহমুদুল আলম স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

রাষ্ট্রপতি ও বিশ্ববিদ্যালয়ের আচার্য মো. আবদুল হামিদের অনুমোদনক্রমে অধ্যাপক গোলাম সাব্বির সাত্তারকে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় আইন, ১৯৭৩ এর ১১ (২) ধারা অনুযায়ী নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।

তিনি আজ রবিবার বিকেলেই ২৪তম উপাচার্য হিসেবে যোগদান করেছেন। দায়িত্বভার গ্রহণের পর তিনি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হলে জাতির জনকের প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ ও এক মিনিট নীরবতা পালনসহ মোনাজাত করেন। এছাড়াও তিনি শহীদ ড. শামসুজ্জোহার মাজার, শহীদ মিনার, শহীদ বুদ্ধিজীবী স্মৃতিফলক ও জাতীয় চার নেতার অন্যতম এ এইচ এম কামারুজ্জামানের কবরেও পুষ্পস্তবক অর্পণসহ মোনাজাত করেন।

দায়িত্বে যোগদানের পর উপাচার্য বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষা ও গবেষণা কার্যক্রম নিরবিচ্ছিন্ন রাখাসহ সার্বিক প্রশাসন পরিচালনায় শিক্ষক, কর্মকর্তা ও কর্মচারী, শিক্ষার্থী ও অভিভাবকসহ সংশ্লিষ্ট সচেতন সমাজের সহযোগিতা কামনা করেন।

উল্লেখ্য, বিশিষ্ট ভূতত্ত্ববিদ প্রফেসর গোলাম সাব্বির সাত্তার ১৯৬২ সালে রাজশাহীতে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ভূতত্ত্ব ও খনিবিদ্যা বিভাগ থেকে ১৯৮৪ সালে বিএসসি ও ১৯৮৫ সালে এমএসসি ডিগ্রি অর্জন করেন। উভয় পরীক্ষায় তিনি প্রথম শ্রেণি লাভ করেন। ১৯৯৬ সালে তিনি যুক্তরাজ্যের নিউক্যাসল আপনটাইম বিশ্ববিদ্যালয় থেকে কৃষি বিজ্ঞানে এমফিল ডিগ্রি ও ২০০১ সালে জার্মানির ড্রেসড্রেনের টেকনিক্যাল ইউনিভার্সিটি থেকে পরিবেশ ব্যবস্থাপনা ও উন্নয়নে ডিপ্লেমা অর্জন করেন। ২০০৫ সালে তিনি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় থেকে হাইড্রোজিওলজিতে পিএইচডি ডিগ্রি লাভ করেন।

১৯৯০ সালে তিনি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ভূতত্ত্ব ও খনিবিদ্যা বিভাগে প্রভাষক পদে যোগ দেন ও ২০০৬ সালে প্রফেসর পদে উন্নীত হন।

২০১৯ সালে তিনি একই বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবেশ বিজ্ঞান ইনস্টিটিউটের প্রফেসর ও পরিচালক পদে যোগ দেন। দীর্ঘ অধ্যাপনা জীবনে তিনি ভূতত্ত্ব ও খনিবিদ্যা বিভাগের সভাপতি ছাড়াও বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র উপদেষ্টা, আবাসিক শিক্ষক, সহকারী প্রক্টর, নির্বাচিত সিনেট সদস্য, বিশ্ববিদ্যালয়ের এ্যাথলেটিক্স ও এ্যাকুয়াটিক্স কমিটির সদস্যসহ অন্যান্য কয়েকটি বিশ্ববিদ্যালয় ও প্রতিষ্ঠানে বিভিন্ন দায়িত্ব পালন করেন।

এছাড়া তিনি জার্মানির ড্রেসড্রেন টেকনিক্যাল ইউনিভার্সিটিতে ভিজিটিং প্রফেসর ছিলেন। তিনি বাংলাদেশ জিওলজিক্যাল সোসাইটি, বাংলাদেশ এসোসিয়েশন ফর এডভান্সমেন্ট অব সায়েন্স, বাংলাদেশ ন্যাশনাল জিওগ্রাফিক্যাল এসোসিয়েশন, জার্মান ইউনিভার্সিটি এলামনাই এসোসিয়েশন বাংলাদেশ, হিমালয়ান ইউনিভার্সিটি কনসোর্টিয়ামসহ বেশ কয়েকটি পেশাজীবী প্রতিষ্ঠানের সদস্য।

প্রফেসর সাত্তারের গবেষণার বিষয়ের মধ্যে আছে ভূগর্ভস্থ পানি ব্যবস্থাপনা, পানি ও মাটির মিথস্ক্রিয়া, মৃত্তিকা পদার্থ বিজ্ঞান, ভূগর্ভস্থ পানির মান পর্যবেক্ষণ, জলবায়ু পরিবর্তন, জলবায়ু পরিবর্তনের সাথে ভূপৃষ্ঠের পানির সম্পর্ক ইত্যাদি। এযাবৎ, তাঁর প্রায় ৩০টি গবেষণা প্রবন্ধ দেশ-বিদেশে প্রকাশিত হয়েছে। গত ১০ বছরে তিনি প্রায় ১৫টি আন্তর্জাতিক সেমিনার ও সম্মেলনে অংশগ্রহণ করেন।

প্রফেসর সাত্তার দীর্ঘদিন যাবত বিভিন্ন সামাজিক-সাংস্কৃতিক কর্মকান্ডে সক্রিয় ভূমিকা পালন করে আসছেন। তিনি বাংলাদেশ হার্ট ফাউন্ডেশন, রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি, রাজশাহী শ্যুটিং ক্লাব ও এ্যাডভোকেট আব্দুস সালাম টেনিস কমপ্লেক্সের আজীবন সদস্য। এছাড়া তিনি কাজীহাটা স্পোর্টিং ক্লাবের সহ-সভাপতি এবং এ্যাডভোকেট আব্দুস সালাম টেনিস কমপ্লেক্সের সভাপতি ছিলেন।

তিনি বিবাহিত ও এক পুত্রের জনক। তাঁর স্ত্রী ড. তানজিমা ইয়াসমিন প্রাণরসায়ন ও অনুপ্রাণবিজ্ঞান বিভাগের প্রফেসর ও বিভাগীয় সভাপতি।

এই সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© প্রকাশকঃ ট্রাস্ট মিডিয়া হাউস © 2020-2023